মঙ্গলবার | ২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং |

চবি শিক্ষার্থীকে মারধরকারীদের গ্রেফতারের দাবিতে বিক্ষোভ

চবি প্রতিনিধিঃ

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের ২০১৫-১৬ সেশনের সালেহ আকরাম বাপ্পী (২৩) নামের এক শিক্ষার্থীকে নগরের ষোলশহরে দোকানিদের পিটুনি দেয়ার ঘটনার প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল করেছে শাখা ছাত্রলীগের একাংশের নেতা কর্মীরা। এছাড়াও তারা দুপুর আড়াইটার ট্রেনও আধ ঘন্টা আটকে রাখে।

বৃহস্পতিবার বেলা দুইটার দিকে নগরীর ষোলশহর এলাকায় এ বিক্ষোভ মিছিল করে তারা।

বিক্ষোভ মিছিল শেষে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে বক্তারা বলেন, চবি শিক্ষার্থীদের ওপর বারবার হামলা হওয়া সত্যিই দুঃখজনক। বারবার হামলা হওয়া সত্ত্বেও কার্যকর পদক্ষেপ না নেয়ায় এ ধরনের ঘটনা ঘটেই চলছে।
বাপ্পির ওপর হামলার ঘটনায় কার্যকরী পদক্ষেপ নেয়া না হলে কঠোর কর্মসূচি দেয়ার কথা জানান তারা।

এতে উপস্থিত ছিলেন শাখা ছাত্রলীগ নেতা নিয়াজ আবেদিন পাঠান,হিমু বড়ুয়া, কনক শাহা জয়, সাকিল, সাদ্দাম হোসেন, শাহাদাত হোসেন, মাহফুজুর রহমান, রণি প্রমুখ।

উল্লেখ্য যে, রবিবার (৬ মে) রাতে ক্যাম্পাসে যাওয়ার জন্য দুই বন্ধুসহ নগরীর ষোলশহরের ‘ঝালবিতান’ নামক একটি দোকানে বসে নাস্তা করে বিল দিয়ে ট্রেনের জন্য অপেক্ষা করছিলেন বাপ্পি। বিল দেয়ার পরও পুনরায় বিল চাওয়া নিয়ে কথা কাটাকাটির জের ধরে বাপ্পীকে ‘ছিনতাইকারী’ সাজিয়ে অন্য দোকানদারদের সহায়তায় বেদম মারধর করে। এতে বাপ্পীর দুই পা ও মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন অংশে জখম হয়েছে। পরে তাকে উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজে ভর্তি করেন পথচারীরা। বর্তমানে তাকে বেসরকারি একটি হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

এ ঘটনার প্রেক্ষিতে সোমবার বাপ্পির বাবা বাদী হয়ে নগরীর পাঁচলাইশ থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

fb-share-icon35
fb-share-icon20

Enjoy this blog? Please spread the word :)