বুধবার | ৩০শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং |

মেসির ভুলেই ডুবলো আর্জেন্টিনা

স্পোর্টস ডেস্ক,শনিবার,১৬ জুন ২০১৮:
মেসির কাঁধে ভর করেই তো বিশ্বকাপের রণতরী পার হওয়ার কথা আর্জেন্টিনার। ভক্ত-সমর্থক ও গোটা ফুটবল বিশ্ব তো তেমনটিই বিশ্বাস করে ও জানে। অথচ বিশ্বসেরা এই তারকার বড় ভুলেই ডুবলো দুই বারের চ্যাম্পিয়নরা। ম্যাচের ৬৪ মিনিটে পেনাল্টি মিস করে আর্জেন্টিনাকে ২ পয়েন্ট থেকে বঞ্চিত করলেন মেসি। আর তাতে বিশ্বকাপে নবাগত ও অপেক্ষাকৃত দুর্বল আইসল্যান্ডের বিপক্ষে ১-১ ড্র দিয়ে আর্জেন্টিনার বিশ্বকাপ শুরু করতে হলো।

মেসির এই পেনাল্টি মিসেই আর্জেন্টিনার ভরাডুবি
শনিবার বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা ৭টায় মস্কোর অটক্রিটিয়ে অ্যারেনায় ‘ডি’ গ্রুপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে মাঠে নামে আর্জেন্টিনা ও ইউরোর মঞ্চে দুই বছর আগে আলো ছড়ানো আইসল্যান্ড।

ম্যাচ শুরুর পর থেকেই একের পর আক্রমণ চালিয়ে আইসল্যান্ডকে দিশেহারা করে তোলে আর্জেন্টিনা। তার ফল পেতেও বেশি সময় লাগেনি। প্রথমার্ধের ১৯ মিনিটেই দুর্দান্ত এক গোল করে আর্জেন্টিনাকে লিড এনে দেন সার্জিও আগুয়েরো।

তবে সেই উদযাপন দানা বাঁধতে দেয়নি বিশ্বকাপের মূল মঞ্চে প্রথমবারের মতো পারফর্ম করতে আসা আইসল্যান্ড। মাত্র ৪ মিনিট পরই ২৩ মিনিটে ফিনবোগাসনের গোলের সমতায় ফিরে তারা।

জটলার মধ্যে আইসল্যান্ডের নেওয়া শট দারুণ দক্ষতায় ঠেকান আর্জেন্টিনা গোলরক্ষক ক্যারায়েরো। কিন্তু বিপদমুক্ত করতে পারেনি তিনি। ফিরতি বল পেয়ে জালে জড়িয়ে দেয় ১১ নম্বর জার্সির ফুটবলার।

১-১ গোলে বিরতি থেকে ফিলে আক্রমণে শাণ দিয়েছিল আর্জেন্টিনা। তবে দ্বিতীয়ার্ধে সম্পূর্ণ রক্ষণার্থক ফুটবল খেলা আইসল্যান্ডের দেয়ালে চির ধরলেও তার ভাঙতে পারেননি মেসি, ডি মারিয়া, আগুয়েরোরা।

যদি শেষ রক্ষা হয় এই ভেবে ম্যাচের ৮৫ মিনিটে বদলি খেলোয়াড় হিসেবে গঞ্জালো হিগুয়েইনকে মাঠে নামান কোচ হোর্হে সাম্পাওলি। কিন্তু ভাগ্যদেবতা বাম থাকায় কাঙ্ক্ষিত গোলের নাগাল পায়নি মেসিরা।

দ্বিতীয়ার্ধের অধিকাংশ সময়ই বরফের দৈত্যদের বক্সের কাছে ঘোরাঘুরি করেছে। কিন্তু গোল করতে পারেনি।আইসল্যান্ড খেলোয়াড়দের উচ্চতা সব ৬ ফুটের কাছাকাছি। তাদের তৈরি করা বরফের দেয়ালে আটকে গেলো মেসি এবং তার দলের আক্রমণ। পাভন বদলি হিসেবে মাঠে নামার পর ম্যাচের ৭৭ মিনিটে আবার পেনাল্টির আবেদন করেন। কিন্তু রেফারি না করে দেন। এর ৭৯ মিনিটে মেসি বক্সের বাইরে থেকে দারুণ এক শট নেন। কিন্তু বল যায় গোলের পাশ ঘেঁসে।

পুরো ম্যাচে আর্জেন্টিনা ৭৮ ভাগ বল নিজেদের পায়ে নিয়ে খেলেছে। অপরদিকে আইসল্যান্ডের বল পায়ে ছিল মাত্র ২২ ভাগ। আলবেসেলেস্তাদের ৭৫২ সফল পাসের বিপরীতে আইসল্যান্ড পাস দিয়েছে মাত্র ২০৮টি। আর্জেন্টিনা গোলের লক্ষ্যে ও বাইরে নিয়েছে ১৭টি শট। আইসল্যান্ডের মাত্র ৭টি।

তবে সব পরিসংখ্যা পক্ষে থাকলেও মেসির পেনাল্টি মিসে রাশিয়া বিশ্বকাপটা জয়বঞ্চিত থেকেই শুরু করতে হলো আর্জেন্টিনাকে।

fb-share-icon35
fb-share-icon20

সময় বাচাঁতে ঘরে বসে কেনা-কাটা

Enjoy this blog? Please spread the word :)