বৃহস্পতিবার | ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং |

‘গুছিয়ে মিথ্যা বলার’ বিশেষ গুণ আছে মওদুদের: হাছান

নিজস্ব প্রতিবেদক,বৃহস্পতিবার ২১ জুন ২০১৮: বিএনপির নেতা ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদের গুছিয়ে সুন্দর করে মিথ্যা কথা বলার বিশেষ গুণ আছে মন্তব্য করে আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদন ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, ‘মওদুদ আহমদ মিথ্যা বলার পারদর্শিতার কারণেই জিয়াউর রহমান ও এরশাদ সরকারের খুব প্রিয় মানুষ ছিলেন।’

বৃহস্পতিবার (২১ জুন) দুপুরে ধানমণ্ডিস্থ আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ের প্রচার ও প্রকাশনা উপ-কমিটির বৈঠক শেষে তিনি এসব কথা বলেন।

হাছান মাহমুদ বলেন, ‘মওদুদ আহমদ জিয়াউর রহমানের প্রধানমন্ত্রী ছিলেন। এরশাদ সাহেবেরও প্রধানমন্ত্রী এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট ছিলেন। জিয়াউর রহমানে পতনের মুহূর্তেই তার বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ উঠে। এরশাদের সময় তার দুর্নীতির শাস্তি হয়েছিলো। পরে তার শাস্তি মওকুফ করা হয়। বঙ্গবন্ধু যখন রাষ্ট্রক্ষমতায় ছিলেন তখন দুর্নীতির অভিযোগে তার শাস্তি হয়েছিল। কিন্তু পল্লী কবি জসিম উদ্দিনের মেয়ের জামাতা হিসেবে পল্লী কবির অনুরোধের প্রেক্ষিতে তার শাস্তি মওকুফ করা হয়েছিল। তিনি বহু আগে থেকেই একজন বিতর্কিত মানুষ।’

আওয়ামী লীগের এ মুখপাত্র বলেন, ‘মওদুদ আহমদের নিরাপত্তা জনিত এলাকায় একটি বিষয় নিয়ে গতকালও তিনি নোয়াখালী অঞ্চলের নেতাদের নিয়ে আমাদের দলের (আওয়ামী লীগ) সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের বিরুদ্ধে শালিনতা বিসর্জন দিয়ে বিষোদগার করেছেন।’

ব্যারিস্টার মওদুদকে নিজ বাড়িতে অবরুদ্ধ করে রাখা হয়েছে এমন অভিযোগ মিথ্যা উল্লেখ করে সাবেক এই মন্ত্রী বলেন, ‘কোম্পাণীগঞ্জ বিএনপি কয়েক ভাগে বিভক্তি। ঈদের দিন তার বাড়িতে, তার সামনে বিএনপির নেতাকর্মীরা মারামারি করছেন। তার নিরাপত্তার জন্য পুলিশের পক্ষ থেকে তাৎক্ষণিক ঘর হতে বেড় না হওয়ার জন্য পরামর্শ দিয়েছিলেন। পরে তিনি এলাকায় গণসংযোগও করেছেন। তার প্রমাণ হিসেবে কোম্পানিগঞ্জের ছাত্রদলের একনেতার দেয়া মওদুদ আহমেদের গণসংযোগের স্ট্যাটাসটি সাংবাদিকদের দেখান হাছান মাহমুদ।’

এসময় প্রচার ও প্রকাশনা উপ-কমিটির চেয়ারম্যান এইচটি ইমামসহ অন্যানরা উপস্থিত ছিলেন।

fb-share-icon35
fb-share-icon20

Enjoy this blog? Please spread the word :)