সোমবার | ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং |

আচমকা বিরাট বড় সুখবর পেলেন হাফিজ

ফেরার আশা বোধ হয় ছেড়ে দিয়েছিলেন তিনি নিজেও। মোহাম্মদ হাফিজ সর্বশেষ পাকিস্তানের পক্ষে টেস্ট খেলেছিলেন প্রায় দুই বছর আগে, ২০১৬ সালের আগস্টে। আসন্ন অস্ট্রেলিয়া সফরের ১৭ সদস্যের দলেও ছিলেন না। হঠাৎ বাড়তি একজন ব্যাটসম্যানের প্রয়োজন পড়লো, ডাক পেলেন ৩৮ ছুুঁই ছুুঁই অভিজ্ঞ এই অলরাউন্ডার।

সংযুক্ত আরব আমিরাতে আগামী ৭ অক্টোবর থেকে শুরু হচ্ছে পাকিস্তান এবং অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার দুই টেস্টের সিরিজ। দলে ফেরার খবর শোনার পর সবার প্রথমে যে ফ্লাইটটি পাবেন, সেটিতেই দুবাইয়ের উদ্দেশ্যে চড়ে বসবেন হাফিজ।

মূলতঃ দলের অনভিজ্ঞ টপ অর্ডারে শক্তি বাড়াতেই হাফিজের অকস্মাৎ অন্তর্ভূক্তি। পাকিস্তানের এই দলটিতে উপরের ব্যাটসম্যানরা একেবারেই অনভিজ্ঞ। ইমাম উল হক খেলেছেন মাত্র তিনটি টেস্ট, ফাখর জামানের এখনও বড় ফরমেটে অভিষেক হয়নি।

হঠাৎ ডাক পাওয়া হাফিজ সম্ভবত টেস্ট ফরমেটে ফেরার আশাই ছেড়ে দিয়েছিলেন। ৫০ টেস্টের অভিজ্ঞতাসম্পন্ন এই অলরাউন্ডার ২০১৬ সালের আগস্টের পর থেকে নির্বাচকদের বিবেচনার বাইরে। শুধু টেস্ট নয়, সীমিত ওভারেও আস্তে আস্তে জায়গাটা কঠিন হয়ে যাচ্ছে হাফিজের। সদ্য সমাপ্ত এশিয়া কাপে ডাক পাননি। সর্বশেষ খেলেছেন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টি-টোয়েন্টিতে, চলতি বছরের জুলাইয়ে। এমন সময়ে টেস্ট দলে ডাক পাওয়া, চমক জাগানোর মতো খবরই!

পাকিস্তান দল : আজহার আলি, ইমাম উল হক, ফাখর জামান, বাবর আজম, আসাদ শফিক, হারিস সোহেল, উসমান সালাউদ্দিন, সরফরাজ আহমেদ (অধিনায়ক), মোহাম্মদ রিজওয়ান, ফাহিম আশরাফ, শাদাব খান, বিলাল আসিফ, ইয়াসির শাহ, মোহাম্মদ আব্বাস, ওয়াহাব রিয়াজ, হাসান আলি, মীর হামজা, মোহাম্মদ হাফিজ।

 

মেঘনায় লঞ্চ-কার্গো সংঘর্ষে বেঁচে গেল দুই শতাধিক যাত্রী / মুহূর্তেই ডুবে গেল: ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন….

 

fb-share-icon35
fb-share-icon20

Enjoy this blog? Please spread the word :)