শনিবার | ২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং |

এতোকিছুর পরও যে কারণে আশরাফুলের নাম সবার আগে

দুই ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচে ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা আত্তাই দিলোনা উইন্ডিজ বোলাররা। এমন কি টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচে অভিষেক হয় ১৮ বছর বয়সী পৃথ্বী শ’র। অভিষেক ম্যাচেই শতক হাঁকিয়েছেন ডানহাতি এই তরুণ ব্যাটসম্যান।

মাত্র ৯৯ বলে তুলে নিলেন নিজের অভিষেক ম্যাচে প্রথম টেস্ট সেঞ্চুরি। এর মাধ্যমে রেকর্ডবুকে নাম লেখানোর পাশাপাশি অভিষেক টেস্টে সবচেয়ে কম বলে শতক হাঁকানো ব্যাটসম্যানদের তালিকায় তৃতীয় সাথে আছেন তার নাম।

আর এই তালিকায় প্রথমে বাঁহাতি ওপেনার শেখর ধাওয়ানের নাম। ২০১৩ সালে মোহালিতে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে অভিষেকেই ধাওয়ানের ৮৫ বলের শতকটি এখনও রয়েছে সবার ওপরে। অভিষেক টেস্টে ৯৩ বলে শতক করে দ্বিতীয় স্থানে আছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেটার ডুয়াইন স্মিথ।

অভিষেক টেস্টে ১৩৪ রানে সাজঘরে ফিরে যান পৃথ্বী। কিন্তু নিজের এই অভিষেক শতকে তিনি নাম লিখিয়েছেন আরও অনেক রেকর্ডে। টেস্ট অভিষেকে সবচেয়ে কম বয়সে সেঞ্চুরি করা ব্যাটসম্যানদের তালিকায়ও চতুর্থ স্থানে আছেন ১৮ বছর ৩২৯ দিন বয়সী পৃথ্বী। অন্য দুইজন হলেন জিম্বাবুয়ের হ্যামিল্টন মাসাকাদজা এবং পাকিস্তানের সেলিম মালিক।

কিন্তু সবার ওপরে আছেন বাংলাদেশের মোহাম্মদ আশরাফুলের নাম। তিনি অভিষেকে সেঞ্চুরি করেছিলেন ১৭ বছর ৬১ দিনে।

এদিকে পৃথ্বীর চেয়ে কম বয়সে প্রথম সেঞ্চুরি করেছেন শচীন টেন্ডুলকার, তখন তার বয়স ছিল ১৭ বছর ১১ দিন। তবে সেটা অভিষেক ম্যাচে নয়। অভিষেক টেস্টে সবচেয়ে কম বয়সে ভারতের হয়ে শতক হাঁকানো ব্যাটসম্যানের মধ্যে পৃথ্বীই প্রথম।

এছাড়া সে শুধু টেস্ট অভিষেকেই নয়, পৃথ্বী সেঞ্চুরি পেয়েছিলেন নিজের রঞ্জি ট্রফি ও দিলিপ ট্রফির অভিষেকে ম্যাচেও।

fb-share-icon35
fb-share-icon20

Enjoy this blog? Please spread the word :)