বৃহস্পতিবার | ১লা অক্টোবর, ২০২০ ইং |

অবশেষে বাংলাদেশ খুজে পেলো ২য় মুস্তাফিজকে

বাংলাদেশ দলের অভিজ্ঞ পেসার মুস্তাফিজুর রহমানকে দেখেই পেস বোলার হয়ে ওঠার ইচ্ছা জাগে বর্তমান সময়ের তরুন পেসার শরিফুল ইসলামকে। ২০১৫ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে মুস্তাফিজুর রহমানের অভিষেক ম্যাচ দেখেই ক্রিকেটে আসার জন্য অনুপ্রেরণা খুঁজে পান এই বাঁহাতি পেসার।

শরিফুল যেখান থেকে উঠে এসেছেন সেখানে কোন বিদ্যুৎ সংযোগ নেই। নিজ বাড়ি থেকে ২০ মিনিট দূরের এক স্থানীয় বাজারে গিয়ে খেলা দেখতেন তিনি। ক্রিকেটে আসার ব্যাপারে শুরুতে তাঁর পরিবারের সম্মতি না থাকলেও চাচা’র সাহায্যে একাডেমিতে যোগ দেন এই তরুন।

সম্প্রতি ক্রিকফ্রেঞ্জিকে দেয়া একান্ত এক সাক্ষাতকারে ক্রিকেটে আসার পথযাত্রা নিয়ে কথা বলেছেন ১৯ বছর বয়সী এই ডানহাতি পেসার।

শরিফুল বলেন,‘আমাদের এলাকায় এখনও বিদ্যুতের সংযোগ নেই। মউমারি স্থানীয় বাজারে পাকিস্তানের বিপক্ষে মুস্তাফিজের অভিষেক ম্যাচটি দেখেছিলাম। যা আমার বাড়ি থেকে মাত্র ২০ মিনিট দূরে। দেখলাম একজন চিকন ছেলে দারুণ বোলিং করছে, ভালোই লাগছিল দেখতে।

তারপর ভেবে দেখলাম চেষ্টা করলেই আমিও তাঁর মতো একজন ফাস্ট বোলার হয়ে উঠতে পারি। পরিবারের সাথে বিষয়টি নিয়ে আলাপ করি, তাঁরা শুরুতে রাজি হন নি। আমার পরিবারের সদস্যরাই আমার চাচাকে বিষয়টি জানায়, এরপর তিনিই দায়িত্ব নিয়ে আমাকে অ্যাকাডেমিতে নিয়ে যান।’

দিনাজপুরের এক একাডেমিতে ৭ দিন অনুশীলন করার পরই ঢাকা প্রিমিয়ার লীগ এবং জাতীয় ক্রিকেট লীগে খেলার সুযোগ পান শরিফুল। আর ঘরোয়া লীগে সুযোগ পেয়ে নিজের সামর্থ্য বেশ ভালোভাবেই প্রমাণ করেছেন এই পেসার।

‘দিনাজপুরের এক একাডেমিতে ৭দিন অনুশীলন করি। আলমগির কবির নামে রাজশাহীর ক্রিকেট একাডেমিতে একজন পেস বোলিং কোচ হিসেবে এসেছিলেন। এরপরই রাজশাহীর হয়ে এনসিএলে অংশ নেই তারপর ডিপিএল খেলি,’ বলেন তিনি।

fb-share-icon35
fb-share-icon20

সময় বাচাঁতে ঘরে বসে কেনা-কাটা

Enjoy this blog? Please spread the word :)