রবিবার, ২৫ অক্টোবর ২০২০, ০২:৪২ পূর্বাহ্ন

তুরাগের দলিপাড়ায় ১৮ মাসের একটি বাচ্চা রেখে মায়ের আত্মহত্যা

Reporter Name
  • প্রকাশিত | শনিবার, ২৭ অক্টোবর, ২০১৮

রাসেল খান,

রাজধানীর তুরাগ থানাধীন দলিপাড়া এলাকায় এক গৃহবধু তার ১৮ মাসের একটি বাচ্চা রেখে নিজ ঘরের শিলিং ফেনে ঝুলে আত্মহত্যার ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় শুক্রবার দিবাগত রাত সাড়ে ৩ টার দিকে  তুরাগ থানা পুলিশ খবর পেয়ে নিহতের লাশ উদ্ধার করেন। নিহত ঐ গৃহবধুর নাম রোকেয়া আক্তার (২২)। 
জানা যায়, নিহত রোকেয়া পরিবার নিয়ে দলিপাড়া মাদ্রাসার পিছনে একটি বাসায় ১৮ মাসের একটি শিশু সন্তান ইব্রাহীম খলিল ও স্বামী কামরুতজ্জামান কে নিয়ে তিন দিন যাবৎ বসোবাস করেন।
তুরাগ থানার এস আই নিজাম আহাম্মেদ শরিফ  জানান, শুক্রবার দিবাগত রাত আনুমানিক ৩ টার দিকে মাসুদ আহাম্মেদ সাহেবের বাড়ির কেয়ারট্যাকার মসজিদের ইমাম মিজান সাহেব তুরাগ থানায় খবর দিলে রাত সাড়ে ৩টার দিকে আমরা ঘটনা স্থলে পৌছে ঘরের শিলিং ফ্যান এর সঙ্গে ওড়না দ্বারা গলায় ফাসদেয়া অবস্থায় গৃহবধু রোকেয়া আক্তার (২২) এর লাশ উদ্ধার করি। বাড়ির অন্য ভাড়াটিয়ারা জানান, নিহত রোকেয়া এবং তার স্বামী কামরুতজ্জামান (২৮) গত তিন দিন যাবৎ এই বাসায় উঠেছে। তার স্বামী পেশায় একজন  ইলেকট্রিক মিস্ত্রী।
শুক্রবার দিবাগত রাত আনুমানিক সাড়ে ১২টার দিকে স্বামী স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া এবং হাতা হাতির শব্দ পাই। রাতেই স্বামী কামরুতজ্জামান ঝগড়া করে বাসা থেকে চলে গেলে রাগে ক্ষোভে ঘরের শিলিং ফ্যান এর সাথে আত্মহত্যা করেন।
তুরাগ থানার অপারেশন তদন্ত দুলাল হোসেন  জানান, আমরা লাশটি উদ্ধার করে  প্রাথমিক সুরাতহাল শেষে লাশটি ময়না তদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে তুরাগ থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়েরর প্রস্তুতি চলছে। 




আরো সংবাদ পড়ুন
© All rights reserved &copy | 2016 dhaka24.net
Theme Dwonload From Revehost.com
reve63546565665656245