সোমবার | ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং |

ইংলিশদের কাঁদিয়ে অজিদের দাপুটে জয়

স্পোর্টস ডেস্ক | মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০১৯:
বিশ্বকাপে স্বাগতিক ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ৬৪ রানের দাপুটে জয় পেয়েছে অস্ট্রেলিয়া। এতে সেমিফাইনালে খেলার আশা বাঁচিয়ে রাখতে বড় ধরণের ধাক্কা খেলো অন্যতম ফেভারিট হিসেবে টুর্নামেন্ট শুরু ইংল্যান্ড।

২৮৬ রানের টার্গেট তাড়া করতে নেমে ৫৩ রানে প্রথম সারির ৬ ব্যাটসম্যানের উইকেট হারিয়ে কোণঠাসা হয়ে পড়েছে ইংলিশরা। বেন স্টোক ছাড়া কোন ব্যাটসম্যানই ফিফটির কাছেও যেতে পারেনি।

মিসেল স্টার্ক, স্টইনিস ও জেসন বিহানড্রপের গতির সামনে দাঁড়াতেই পারেননি জেমস ভিন্স, জো রুট, ইয়ন মরগান ও জনি বেয়ারস্টোরা।

ইনিংসের দ্বিতীয় বলে দলীয় শূন্য রানে বিহানড্রপের গতির বলে স্ট্যাম্প ভেঙে যায় জেমস ভিন্সের। নিজের দ্বিতীয় ওভারের তৃতীয় বলে ফর্মের তুঙ্গে থাকা জো রুটকে এলবিডব্লিউ করেন মিসেল স্টার্ক।

দলীয় ষষ্ঠ ওভারে স্টার্কের বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফেরেন ইংল্যান্ড অধিনায়ক ইয়ন মরগান। অস্ট্রেলিয়ান পেসারদের গতির মুখে প্রতিরোধ গড়ে তোলার চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন ওপেনার জনি বেয়ারস্টো। তিনি বিহানড্রপের দ্বিতীয় শিকার হয়ে সাজঘরে ফেরেন। তার আগে ৩৯ বলে ২৭ রান করেন বেয়ারস্টো। উসমান খাজার হাতে ক্যাচে দিয়ে স্টইনিক ফেরান জস বাটলারকে। মিচেন স্টার্ক বোল্ড করেন ৮৯ রান করা বেন স্টোককে।

এরআগে অ্যারন ফিঞ্চের সেঞ্চুরিতে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ৭ উইকেটে ২৮৫ রান। এক উইকেটে ১৭৩ রান করা অস্ট্রেলিয়া এরপর ৫৫ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে কোণঠাসা হয়ে পড়ে। নিয়মিত বিরতিতে উইকেট পতনের কারণে শেষ পর্যন্ত ৭ উইকেটে ২৮৫ রানে ইনিংস সমাপ্ত করে।

মঙ্গলবার ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ডেভিড ওয়ার্নারের সঙ্গে ১২৩ রানের জুটি গড়েন ফিঞ্চ। আগের ম্যাচে বাংলাদেশের বিপক্ষে ব্যাটিং তাণ্ডব চালিয়ে ১৬৬ রান করা ওয়ার্নার এদিনও দুর্দান্ত ব্যাটিং করে যান। মঈন আলীর বলে ক্যাচ তুলে দেয়ার আগে ৬১ বলে ৬টি চারের সাহায্যে ৫৩ রান করেন ওয়ার্নার।

দ্বিতীয় উইকেটে অ্যারন ফিঞ্চের সঙ্গে ৫০ রানের জুটি গড়েন উসমান খাজা। এক উইকেটে ১৭৩ রান করা অস্ট্রেলিয়া এরপর ৫৫ রানের ব্যবধানে হারায় ৪ উইকেট। ২৯ বলে ২৩ রান করে বেন স্টোকসের বলে বোল্ড উসমান খাজা।

ইনিংসের শুরু থেকে অসাধারণ ব্যাটিং করে যাওয়া অ্যারন ফিঞ্চ ওয়ানডে ক্যারিয়ারের ১৫তম সেঞ্চুরি করার পর জফরা আর্চারের শিকার হন। ১১৬ বলে ১০০ রান করে সাজঘরে ফেরেন ফিঞ্চ। ব্যাটিং তাণ্ডব শুরুর আগেই গ্লেন ম্যাক্সওয়েলকে সাজঘরে ফেরান মার্ক উড। ৮ রানে রান আউট মার্কু স্টইনিস। তার বিদায়ের মধ্য দিয়ে ৪১.৫ ওভারে ২২৮ রানে পাঁচ উইকেটে হারায় অস্ট্রেলিয়া।

দলের ব্যাটিং বিপর্যয়ের দিনে হাল ধরতে পারেননি সাবেক অধিনায়ক স্টিভ স্মিথ। ৩৪ বলে ৫টি চারের সাহায্যে ৩৮ রান করতেই ক্রিস ওকসের বলে ক্যাচ তুলে দেন স্মিথ। তার বিদায়ের পর ইনিংসের শেষ দিকে একাই লড়াই করে যান অ্যালেক্স কেরি। তার ২৭ বলের অপরাজিত ৩৮ রানে ভর করে ৭ উইকেটে ২৮৫ রান তুলতে সক্ষম হয় অস্ট্রেলিয়া।

fb-share-icon35
fb-share-icon20

Enjoy this blog? Please spread the word :)