বুধবার | ৩০শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং |

রংপুর-৩ আসন জাপার কাছে ‘খুবই গুরুত্বপূর্ণ’: জিএম কাদের

নিউজ ডেস্ক | রবিবার,২৫ আগস্ট ২০১৯:
রংপুর-৩ আসন জাতীয় পার্টির (জাপা) কাছে ‘খুবই গুরুত্বপূর্ণ’ বলে মন্তব্য করেছেন দলটির চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের।

তিনি বলেন, ‘উপ-নির্বাচনী তফসিল ঘোষণার আগেই আমরা একটি মনোনয়ন বোর্ড গঠন করেছি। তারাই যাচাই-বাছাই করে জাতীয় পার্টির প্রার্থী নির্ধারণ করবে। তাছাড়া রংপুর-৩ আসনটি বরাবরই জাতীয় পার্টির ঘাঁটি। এই বিজয়ী হতেই নির্বাচন করবো আমরা।’ রবিবার (২৫ আগস্ট) জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের বনানী অফিসে গণমাধ্যমকর্মীদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এসব কথা বলেন।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে জিএম কাদের বলেন, ‘দলের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী বিরোধী দলীয় নেতা নির্বাচন করবে জাতীয় পার্টি।’

এর আগে জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যানের বনানী অফিসে পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের কুলখানি বাস্তবায়ন করতে ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণের যৌথসভা অনুষ্ঠিত হয়।

যৌথসভায় সভাপতির বক্তব্যে জাতীয় পার্টির মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা বলেন, ‘৩১ আগস্ট সারা দেশের প্রতিটি থানা ও উপজেলায় পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের কুলখানিতে কোরআন তেলাওয়াত, দোয়া মাহফিল ও দুঃস্থদের মাঝে খাবার বিতরণ করা হবে।’

তিনি সাংবাদিকদের বলেন, ‘রংপুর-০৩ আসনটি জাতীয় পার্টির দূর্গ। এই আসনে জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী বিজয়ী হবেই।’

এসময় উপস্থিত ছিলেন- দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য কাজী ফিরোজ রশীদ, এস.এম. ফয়সল চিশতী, শফিকুল ইসলাম সেন্টু, এ্যাড. রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, ভাইস চেয়ারম্যান জহিরুল আলম রুবেল, আহসান আদিলুর রহমান , যুগ্ম মহাসচিব গোলাম মোহাম্মদ রাজু, সুলতান আহমেদ সেলিম, সাংগঠনিক সম্পাদক- শামসুল হক, মোস্তাফিজুর রহমান নাঈম, হাজী নাসির উদ্দিন সরকার, দফতর সম্পাদক সুলতান মাহমুদ, যুগ্ম দফতর সম্পাদক এম.এ. রাজ্জাক খান, সম্পাদক হুমায়ুন খান প্রমুখ।

উল্লেখ্য, গত ১৪ জুলাই জাপা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ মৃত্যুবরণ করায় তাঁর রংপুর-৩ সংসদীয় আসনটি ১৭ জুলাই শূন্য ঘোষণা করে গেজেট প্রকাশ করে সংসদ সচিবালয়। সংবিধান অনুযায়ী কোনও সংসদীয় আসন শূন্য ঘোষণা করা হলে ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন করার বাধ্যবাধকতা রয়েছে।

fb-share-icon35
fb-share-icon20

সময় বাচাঁতে ঘরে বসে কেনা-কাটা

Enjoy this blog? Please spread the word :)