শুক্রবার | ২রা অক্টোবর, ২০২০ ইং |

কালো জিরায় বহু রোগের সমাধান

স্বাস্থ্য ডেস্ক | সোমবার, ২ সেপ্টেম্বর ২০১৯:
প্রতিদিনের রান্নাবান্নায় দরকারি মশলাগুলোর মধ্যে কালো জিরাও রয়েছে। রান্নাকে আরও সুস্বাদু করতে কালো জিরার জুড়ি নেই। কিন্তু শুধু খাবার রান্নাতেই নয়, পুষ্টিবিদ ও খাদ্যবিজ্ঞানীরা মনে করেন, শরীরকে নানা রোগবালাইয়ের হাত থেকে সুরক্ষিত রাখতে ও রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে কালো জিরা ওষুধি হিসেবে কাজ করে। কালো জিরা ও এর তেল ব্যবহারে এরকম কিছু উপকারিতা তুলে ধরা হলো:

কালো জিরাকে সর্দি-কাশি প্রতিরোধক হিসেবে ব্যবহার করা নতুন নয়। একটি পরিষ্কার কাপড়ে কালো জিরে জড়িয়ে তা নাকের কাছে নিয়ে বড় করে শ্বাস টানুন কিছুক্ষণ। এর ঝাঁজ বুকে জমে থাকা শ্লেষ্মাকে টেনে বার করতে সাহায্য করে। সর্দিতে নাক বন্ধ হলেও কালো জিয়া বিশেষ উপকারী।

প্রচুর পরিমাণ ফসফরাস থাকে কালো জিরাতে। শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকে বাড়াতে সাহায্য করে ফসফরাস। তাই জীবাণুর সংক্রমণ ঠেকাতে কালো জিরেকে অবহেলা নয়।

কালো জিয়া ক্রনিক পেটের সমস্যায় কাজ করে। শুকনো খোলায় ভেজে গুঁড়ো করে নিয়ে আধ কাপ ঠান্ডা করা দুধে এই কালো জিরে এক চিমটে মিশিয়ে খালিপেটে প্রতিদিন খেতে পারলে কখনোই আপনার বদহজম হবে না। পেটের সমস্যা থেকেও মুক্তি মিলবে।

শ্বাসকষ্টের সমস্যা হঠাৎ মুশকিলে ফেললে সব সময় চিকিৎসকের সরণ নেওয়ার অবস্থা থাকে না। অনেক সময় হাতের কাছে মজুত থাকে না দরকারি ওষুধও। কালো জিরে রাখুন কাপড়ে জড়িয়ে। এ বার নাকের কাছে নিয়ে গন্ধ শুঁকুন এর। শ্বাসকষ্টের কষ্ট থেকে সাময়িক মুক্তি দিতে পারে এই ঘরোয়া উপায়।

শুধু কালো জিরেই নয়, এর তেলও শারীরিক নানা সমস্যা সমাধানে কাজে আসে। ক্রনিক মাথা যন্ত্রণা মাইগ্রেনের সমস্যা থাকলে কালো জিরের তেল কপালে মালিশ করলে আরাম পাওয়া যায়।

চুল পড়া রুখতেও কালো জিরের তেল উপকারী। এক চামচ নারকেল তেলের সঙ্গে সম পরিমাণ কালো জিরের তেল মিশিয়ে গরম করে নিন। মাথায় ত্বকে এই তেল ঈষদুষ্ণ অবস্থায় মালিশ করুন। এক সপ্তাহ টানা এমন করলে চুল পড়ার সমস্যা মিটবে অনেকটাই।

ওবেসিটি রুখতে গ্রিন টি-র সঙ্গে মিশিয়ে নিন কালো জিরার গুঁড়ো। মেটাবলিজম বাড়িয়ে শরীরের মেদ ঝরাতে বিশেষ কাজে আসে এই ঘরোয়া কৌশল।

সর্দি-কাশি থেকে বুকে চাপ অনুভব করলে কালো জিরার তেল গরম করে বুকে ও পিঠে মালিশ করলে তাৎক্ষণিক আরাম পাবেন। কমবে কাশির প্রকোপও।

যদি আপনি উচ্চ রক্তচাপের সমস্যায় ভুগেন তাহলে সপ্তাহে একদিন কালো জিরার ভর্তা রাখুন ডায়েটে। কালো জিরের অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট রক্তচাপকে নিয়ন্ত্রণে রাখে। রক্তচাপের ওষুধের সঙ্গে এই পথ্য বিশেষ কার্যকর।

ব্যথা সারানোর অন্যতম দাওয়াই কালো জিরে। দীর্ঘ দিনের পুরনো ব্যথা বা বাতের ব্যথায় কালো জিরের তেল মালিশ করলে কিছুটা স্বস্তি মেলে।

এতে রয়েছে ফসফেট, ফসফরাস ও লৌহের উপস্থিতি অধিক পরিমাণে থাকায় রক্তাল্পতার রোগীরাও এ থেকে উপকার পেয়ে থাকেন। অ্যান্টি অক্সিড্যান্ট ও ক্যারোটিন থাকায় তা অ্যান্টি ক্যানসার হিসেবে দারুণ সহায়ক।

fb-share-icon35
fb-share-icon20

সময় বাচাঁতে ঘরে বসে কেনা-কাটা

Enjoy this blog? Please spread the word :)