বুধবার | ১৫ই জুলাই, ২০২০ ইং |

জেনে নিন, ঢাকার কোন এলাকায় কতজন আক্রান্ত

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট:
​নভেল করোনা ভাইরাসে ভয়াবহ দুঃসময় পার করছে দেশ। ব্যাপক হারে ছড়িয়ে পড়ছে ভাইরাসটি। প্রতিদিনই বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। ঘরবন্দি মানুষ আজ জীবন-মৃত্যুর দোলাচলে দিশেহারা।

সবশেষ গতকাল মঙ্গলবার ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ৪৩৪ জন আক্রান্ত হয়েছেন, মৃত্যু হয়েছে ৯ জনের। বর্তমানে বাংলাদেশে মোট করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ৩ হাজার ৩৮২ জন। মোট মৃত্যু হয়েছে ১১০ জনের। সুস্থ হয়েছেন ৮৭ জন।

গত ৪ দিনেই আক্রান্ত হয়েছে দেড় হাজারের বেশি মানুষ। তিন হাজার ছাড়িয়ে যাওয়া করোনা রোগীর মধ্যে সবচেয়ে বেশি আক্রান্তের সংখ্যা রাজধানী ঢাকায়। গতকাল মঙ্গলবারও রাজধানীতে ২২৯ জন সনাক্ত হয়েছে। ঢাকার দুই সিটিতে এখন মোট আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ১ হাজার ৪০৩ জন। এর মধ্যে মিরপুর, যাত্রাবাড়ী, বাসাবোর পরই দ্রুত ভাইরাসটি ছড়িয়ে পড়ছে রাজারবাগ এলাকায়।

বুধবার (২২ এপ্রিল) সরকারের জাতীয় রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের (আইইডিসিআর) ওয়েবসাইটে দেয়া তথ্য অনুযায়ী মঙ্গলবার রাজধানী ঢাকার কোন এলাকায় কতজন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন তা জানা গেছে। একনজরে পাঠকের জন্য তুলে ধরা হলো-

ওয়েবসাইটে দেয়া তথ্য অনুযায়ী, রাজারবাগে ৫০ জন, মোহাম্মদপুরে ৪৪ জন, লালবাগে ৩৫ জন, যাত্রাবাড়ীতে ৩৫ জন, বংশালে ৩১ জন, চকবাজারে ৩১ জন, ওয়ারীতে ৩০ জন, মিটফোর্ডে ২৮ জন, ধানমন্ডিতে ২৬ জন, উত্তরায় ২৩ জন, টোলারবাগে ২৩ জন, গেণ্ডারিয়ায় ২১, মিরপুর ১৪ নম্বরে ২১, শাঁখারীবাজারে ২০, গুলশানে ১৯, বাসাবোতে ১৯, তেজগাঁওয়ে ১৯, হাজারীবাগে ১৮, মহাখালীতে ১৭, মিরপুর ১১ নম্বরে ১৬, আজিমপুরে ১৫, মগবাজারে ১৪, মিরপুর ১২ নম্বরে ১২, সূত্রাপুরে ১২, বাবুবাজারে ১১, মিরপুর ১ নম্বরে ১১, শাহবাগে ১১ জন আক্রান্ত হয়েছেন।

পাশাপাশি আদাবরে পাঁচজন, আগারগাঁওয়ে পাঁচজন, আরমানিটোলায় একজন, আশকোনায় একজন, বাড্ডায় ৯ জন, বেইলি রোডে তিনজন, বনানীতে আটজন, বাংলামোটরে একজন, বানিয়ানগরে একজন, বসুন্ধরায় ছয়জন, বেগুনবাড়ীতে একজন, বেগমবাজারে একজন, বেড়িবাঁধে একজন, বারিধারায় একজন, বছিলাতে একজন, বুয়েট এলাকায় একজন, ক্যান্টনমেন্টে দুজন, ধানমণ্ডির সেন্ট্রাল রোডে একজন, চানখাঁরপুলে আটজন, ঢাকেশ্বরীতে একজন, ডেমরায় ছয়জন, ধোলাইখালে দুজন, দয়াগঞ্জে দুজন, ইস্কাটনে আটজন, ফার্মগেটে দুজন, ফকিরাপুলে একজন, গোলারটেকে একজন, গোরানে তিনজন, গ্রিন রোডে ১০ জন, গোপীবাগে ছয়জন, গুলিস্তানে চারজন, হাতিরঝিলে একজন, হাতিরপুলে তিনজন, ইসলামপুরে দুজন, জেলগেটে দুজন, জিগাতলায় পাঁচজন, জুরাইনে ৯ জন আক্রান্ত পাওয়া গেছে।

এছাড়াও কল্যাণপুরে দুজন, কাঁঠালবাগানে একজন, কলাবাগানে একজন, কাকরাইলে দুজন, কচুক্ষেতে একজন, কামরাঙ্গীরচরে চারজন, কাজীপাড়ায় ছয়জন, কারওয়ান বাজারে তিনজন, কলতাবাজারে দুজন, খিলগাঁওতে পাঁচজন, কদমতলীতে দুজন, কোতোয়ালিতে সাতজন, কুড়িলে একজন, লক্ষ্মীবাজারে পাঁচজন, মালিবাগে চারজন, মানিকদীতে একজন, মাতুয়াইলে তিনজন, মালিটোলায় একজন, মাদারটেকে একজন, মীরহাজিরবাগে দুজন, মিরপুর ২ নম্বর সেকশনে একজন, মিরপুর ৬ নম্বর সেকশনে চারজন, মিরপুর ১০ নম্বরে আটজন, মিরপুর ১৩ নম্বরে দুজন, মোহনপুরে একজন, মতিঝিলে একজন, মুগদায় আটজন, নাজিরাবাজারে দুজন, নবাবপুরে দুজন, নবাবগঞ্জে চারজন, নারিন্দায় আটজন, নাখালপাড়ায় ছয়জন, নিকুঞ্জতে একজন, নায়েববাজারে সাতজন, নিমতলীতে চারজন, পল্লবীতে দুজন, পীরেরবাগে দুজন আক্রান্ত রয়েছে।

রাজধানীর পুরানা পল্টনে দুজন, রামপুরায় পাঁচজন, রমনায় পাঁচজন, সবুজবাগে চারজন, সদরঘাটে তিনজন, রায়েরবাজারে একজন, রায়েরবাগে একজন, রাজাবাজারে একজন, সায়েদাবাদে দুজন, শাহজাহানপুরে চারজন, শাহ আলীবাগে দুজন, শান্তিবাগে একজন, শান্তিনগরে ১০ জন, শ্যামলীতে সাতজন, শ্যামপুরে একজন, তাঁতীবাজারে দুজন, টিকাটুলী আটজন, সোয়ারীঘাটে তিনজন, সিদ্ধেশ্বরীতে চারজন, তুরাগে একজন, শ্যামলীতে সাতজন, শেওড়াপাড়ায় চারজন, শেখেরটেকে একজন, শনির আখড়ায় তিনজন, তেজতুরীবাজারে একজন, উর্দু রোডে একজন ও ভাটারায় সনাক্ত হয়েছে একজন করোনা আক্রান্ত রোগী।

fb-share-icon35
fb-share-icon20

সময় বাচাঁতে ঘরে বসে কেনা-কাটা

Enjoy this blog? Please spread the word :)