বুধবার | ১৫ই জুলাই, ২০২০ ইং |

সারা ভারতে চীনা পণ্য বর্জনের ডাক

নিউজ ডেস্ক | শুক্রবার-১৯ জুন ২০২০:
চীন-ভারত সীমান্তে উত্তেজনার মধ্যে দুদেশের সেনাদের সংঘর্ষে ২০ ভারতীয় সেনা নিহতের ঘটনায় চীনা পণ্য বয়কটের ডাক দিয়েছে ভারতের ব্যবসায়ী সংগঠনগুলো। বিশ্লেষকরা বলছেন, এতে করে ভারতের প্রায় ১৭ বিলিয়ন মার্কিন ডলার ক্ষতি হতে পারে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিভির খবরে বলা হয়েছে, চীনের সমস্ত পণ্য বর্জন করার ডাক দিয়েছে ভারত। তাতে অর্থনৈতিকভাবে বড় লোকসান হবে। বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হবেন ছোট ও মাঝারি ব্যবসায়ীরা।

কিন্তু লাদাখ সীমান্তে ভারতীয় সেনা হত্যার ঘটনায় চীনের প্রতি ধ্বিকার জানিয়ে ভারতের বিভিন্ন রাজ্যে বিক্ষোভ করছেন সাধারণ মানুষ। গোটা ভারতে দাবি উঠেছে চীনা পণ্য বর্জনের।

এরইমধ্যে চীনা পণ্য আমদানি বন্ধ করতে ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের সঙ্গে বৈঠক করেছেন ব্যবসায়ীরা।

মূলত চীন থেকে ভারত যেসব পণ্য বেশি আমদানি করে তার মধ্যে বেশিরভাগই খেলনা, পারিবারিক নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিস, বৈদ্যুতিক ও ইলেকট্রনিক দ্রব্য এবং নানা রকমের প্রসাধনী রয়েছে।

সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে ই-কমার্স সংস্থাগুলির সাধারণ সম্পাদক ভি কে বনসল বলেছেন, ‘আমরা অল ইন্ডিয়া ব্যাপার মণ্ডল ফেডারেশন আমাদের সংস্থার সমস্ত সদস্যদের চীনা পণ্য মজুদ করতে এবং বিক্রি করা থেকে পরবর্তী নির্দেশ না আসা পর্যন্ত বিরত থাকার পরামর্শ দিচ্ছি। আমরা ই-কমার্স সংস্থাগুলিকে চাইনিজ পণ্য বিক্রি নিষিদ্ধের আদেশ দিতে সরকারকে অনুরোধ করেছি।’

এদিকে চাইনিজ পণ্য বর্জনে বলিউড তারকা থেকে শুরু করে দেশটির ক্রিকেট অঙ্গনের রথি-মহারথীরাও একমত জানাচ্ছেন।

fb-share-icon35
fb-share-icon20

সময় বাচাঁতে ঘরে বসে কেনা-কাটা

Enjoy this blog? Please spread the word :)